পরিচ্ছেদঃ ৫. তৃতীয় অনুচ্ছেদ - বসা, ঘুমানো ও চলাফেরা করা

৪৭৩০-[২৪] ’আমর ইবনু শারীদ (রহিমাহুল্লাহ) তাঁর পিতা হতে বর্ণনা করেন, একদিন রসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম আমার নিকট দিয়ে গমন করলেন। তখন আমি এভাবে বসেছিলাম যে, আমার বাম হাত আমার পিঠের উপর ছিল এবং ডান হাতের বৃদ্ধাঙ্গুলির গোড়ার মাংসের উপরে আমি ভর করেছিলাম। তিনি (সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম) আমাকে এ অবস্থায় দেখে বললেনঃ তুমি কি এমনভাবে বসছ যেভাবে আল্লাহর অভিশপ্ত ব্যক্তিরা বসে? (আবূ দাঊদ)[1]

عَن عمْرِو
بن الشَّريدِ عَن أبيهِ قَالَ: مَرَّ بِي رَسُولُ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ وَأَنَا جَالِسٌ هَكَذَا وَقَدْ وَضَعْتُ يَدِي الْيُسْرَى خَلْفَ ظَهْرِي وَاتَّكَأْتُ عَلَى أَلْيَةِ يَدِي. قَالَ: «أَتَقْعُدُ قِعْدَةَ الْمَغْضُوبِ عَلَيْهِمْ» . رَوَاهُ أَبُو دَاوُد

عن عمرو بن الشريد عن أبيه قال: مر بي رسول الله صلى الله عليه وسلم وأنا جالس هكذا وقد وضعت يدي اليسرى خلف ظهري واتكأت على ألية يدي. قال: «أتقعد قعدة المغضوب عليهم» . رواه أبو داود

ব্যাখ্যাঃ আলোচ্য হাদীসের মাধ্যমে প্রমাণিত হয় যে, এক হাতকে পিছনে রেখে অপর হাতের উপর ভর করে বসা অপছন্দনীয়। তেমনিভাবে উভয় হাত পিছনে রেখে তার উপর ভর করে বসাও অপছন্দ। কেননা এভাবে অহংকারীরা বসে। ‘আল্লামা ত্বীবী (রহিমাহুল্লাহ) বলেছেনঃ হাদীসে (الْمَغْضُوبِ عَلَيْهِمْ) দ্বারা ইয়াহূদীদেরকে বুঝানো হয়েছে। এ সম্পর্কে হাদীস বর্ণিত রয়েছে। ‘আদী ইবনু হাতিম বর্ণনা করেন, নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন, ইয়াহূদীরা অভিশপ্ত নাসারাগণ পথভ্রষ্ট। (তিরমিযী হাঃ ২৯৫৪)

ইয়াহূদীদের কথা উল্লেখ করার জন্য দু’টি হিকমাত রয়েছে। যথা :

ক. আল্লাহ তা‘আলা যেমনিভাবে ইয়াহূদীদের অবাধ্যতার কারণে তাদের ওপর অসন্তুষ্ট তেমনিভাবে উল্লেখিত নিয়মে বসার প্রতিও অসন্তুষ্ট। খ. এটার মাধ্যমে এ কথার প্রতি ইঙ্গিত করা হয়েছে যে, মুসলিম জাতি এমন এক জাতি যাদের প্রতি আল্লাহ তা‘আলা অসংখ্য নি‘আমাত নাযিল করেছেন। সুতরাং তাদের পক্ষ এমন এক জাতির অনুকরণ করা উচিত নয় যাদের ওপর আল্লাহর অভিসম্পাত বর্ষিত হয়েছে। আর মুসলিমগণের উচিত এভাবে বসা থেকে বিরত থাকা। কেননা আল্লাহ তা‘আলা মুসলিমদের প্রতি অনুগ্রহ করেছেন এবং ইয়াহূদীদের অনুকরণ করা হতে নিষেধ করেছেন। তাদের অনুসরণ করলে তাদের মতো গজব নাযিল হবে মুসলিমদের প্রতি। (মিরক্বাতুল মাফাতীহ)


হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)
বর্ণনাকারীঃ আমর ইবনু শারীদ (রহঃ)
পুনঃনিরীক্ষণঃ
মিশকাতুল মাসাবীহ (মিশকাত)
পর্ব-২৫: শিষ্টাচার (كتاب الآداب)

পরিচ্ছেদঃ ৫. তৃতীয় অনুচ্ছেদ - বসা, ঘুমানো ও চলাফেরা করা

৪৭৩১-[২৫] আবূ যার (রাঃ) হতে বর্ণিত। তিনি বলেন, আমি উপুড় হয়ে শুয়েছিলাম। এ সময় রসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম আমার নিকট দিয়ে অতিক্রম করছিলেন। তিনি স্বীয় পা দ্বারা আমাকে ঠোকা দিয়ে বললেনঃ হে জুনদূব! (আবূ যার (রাঃ)-এর নাম) শোয়ার এ পদ্ধতি জাহান্নামবাসীদের পদ্ধতি। (ইবনু মাজাহ)[1]

وَعَن أبي
ذرِّ قَالَ: مرَّ بِي النبيُّ وَأَنَا مُضْطَجِعٌ عَلَى بَطْنِي فَرَكَضَنِي بِرِجْلِهِ وَقَالَ: «يَا جُنْدُبُ إِنَّمَا هِيَ ضِجْعَةُ أَهْلِ النَّارِ» . رَوَاهُ ابنُ مَاجَه

وعن أبي ذر قال: مر بي النبي وأنا مضطجع على بطني فركضني برجله وقال: «يا جندب إنما هي ضجعة أهل النار» . رواه ابن ماجه

ব্যাখ্যাঃ রসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেনঃ (إِنَّمَا هِيَ ضِجْعَةُ أَهْلِ النَّارِ) উপুড় হয়ে শোয়া জাহান্নামবাসীদের শোয়ার পদ্ধতি। তিনি এ বক্তব্যের মাধ্যমে এ কথার প্রতি ইঙ্গিত করেছেন যে, কাফির ও পাপাচারী লোকেরা এভাবে শয়ন করে। (মিরক্বাতুল মাফাতীহ)


হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)
পুনঃনিরীক্ষণঃ
মিশকাতুল মাসাবীহ (মিশকাত)
পর্ব-২৫: শিষ্টাচার (كتاب الآداب)
দেখানো হচ্ছেঃ থেকে ২ পর্যন্ত, সর্বমোট ২ টি রেকর্ডের মধ্য থেকে