১০৬

পরিচ্ছেদঃ

অতি ক্ষুধার কারণ তিনি একবার বাঁকা হয়ে ঠেস দিয়ে খেয়েছিলেন:

১০৬. আনাস ইবনে মালিক (রাঃ) হতে বর্ণিত। তিনি বলেন, একবার রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম এর কাছে খুরমা আনা হলো। তখন আমি তাঁকে তীব্র ক্ষুধার কারণে বাঁকা হয়ে ঠেস দিয়ে খেতে দেখেছি।[1]

حَدَّثَنَا أَحْمَدُ بْنُ مَنِيعٍ ، قَالَ : حَدَّثَنَا الْفَضْلُ بْنُ دُكَيْنٍ ، قَالَ : حَدَّثَنَا مُصْعَبُ بْنُ سُلَيْمٍ ، قَالَ : سَمِعْتُ أَنَسَ بْنَ مَالِكٍ , يَقُولُ : " أُتِيَ رَسُولُ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ بِتَمْرٍ فَرَأَيْتُهُ يَأْكُلُ وَهُوَ مُقْعٍ مِنَ الْجُوعِ " .

حدثنا أحمد بن منيع ، قال : حدثنا الفضل بن دكين ، قال : حدثنا مصعب بن سليم ، قال : سمعت أنس بن مالك , يقول : " أتي رسول الله صلى الله عليه وسلم بتمر فرأيته يأكل وهو مقع من الجوع " .


Anas bin Maalik (Radiyallahu anhu) says: "Dates were presented to Rasulullah (Sallallahu 'Alayhi Wasallam). I saw him eating them. Due to hunger he was sitting on the support of something and not on his own support".

সাধারণত রাসূলুল্লাহ (সাঃ) কোন জিনিসের সাথে ঠেস দিয়ে বসে আহার করতেন না। এখানে সমস্যার কারণে হেলান দিয়েছিলেন।


That means he was supporting his back on a wall or something. It has been prohibited in the Ahaadith to lean on something and eat. Here it was due to weakness, therefore it cannot be said that it is contrary to the ahaadith prohibiting it, nor can it be reasoned from this hadeeth that it is permissable to lean and eat.


হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)
পুনঃনিরীক্ষণঃ
সহীহ শামায়েলে তিরমিযী
২৪. রাসূলুল্লাহ (ﷺ) এর পানাহারের নিয়ম পদ্ধতি (باب ما جاء في أكل رسول الله ﷺ)