Donate Now
কীবোর্ড সিলেক্টরঃ ফনেটিক বিজয় ইউনিজয়   ইংরেজী
হাদিস প্রশ্নোত্তর/দু'আ/গ্রন্থ প্রশ্নোত্তর (বাংলা হাদিস) গুগল হুবুহু সার্চ
 
 
Donate Now!

প্রশ্ন করেছেনঃ Mohammad Jahir Uddin Babor | তারিখঃ 2014-02-04

প্রশ্ন নম্বরঃ
188

ইমাম আবু হানিফা রহ.-এর সাধনা ও আমল

ইমাম আবু ইউসুফ রহ. বলেন, একবার ইমাম আযম রাস্তা দিয়ে যাচ্ছিলেন এমন সময় রাস্তার ছেলেরা বলে উঠলো, ইনি ইমাম আবু হানিফা, রাতে কখনও ঘুমান না। তখন ইমাম সাহেব স্বীয় সাগরেদ আবু ইউসুফকে লক্ষ্য খসড় বললেন, দেখ! ছেলেরা কি বলছে? অথচ বাস্তবে আমি কি তা করি! আজ থেকে ইবাদত করে রাত কাটাবো। আর রাতে ঘুমাব না।

ইমাম হাসান ইবনে উমারা বর্ণনা করেন, তিনি একাধারে ত্রিশ বছর রোজা রেখেছেন। একচল্লিশ বছর রাতে ঘুমান নাই। ১৬ বছর বয়স থেকে ৭০ বছর বয়স পর্যন্ত ৫৫ বার হজ করেন।

আমার প্রস্ন হছে ঈমাম আবু হানিফা (রঃ) সম্পর্কে এগুলু কি সত্তি? মেহের্বানি করে জানাবেন।                    আল্লাহ আপ্নাদের্কে উত্তম প্রতিদান দান করুন। আমিন।

উত্তরঃ

বিসমিল্লাহির রাহিম।
ইমাম আবু হানিফা (রহঃ) সম্পর্কে এগুলি সবই বানানো কথাবার্তা এবং এগুলির সত্যতার কোন ভিত্তি বা দলিল নেই। একদল বিদআতি ব্যাক্তি ইমাম আবূ হানিফা (রহঃ) এর নামে এগুলি বানিয়ে উনাকে অনেক উপরে তুলতে চেয়েছে এমনকি রাসুল (সাঃ) উপরেও তুলে ফেলে তাঁরা অনেক সময় (নাউজুবিল্লাহ) আর এগুলি করতে গিয়ে তাঁরা এসব মিথ্যা রচনা করেছে কিন্তু তাঁরা জানেনা যে যেগুলি রচনা করে ইমাম আবূ হানিফা (রহঃ) কে উপরে তুলতে চেয়েছে সেগুলি সবই ইসলামী শরীয়তের বহির্ভূত কর্মকাণ্ড, এবং ইমাম আবূ হানিফা (রহঃ) কখনো এই ধরনের শরিয়া বহির্ভূত কর্মকাণ্ডের সাথে যুক্ত ছিলেন না এবং তিনি একজন সত্যিকারের দ্বীনের আলেম ছিলেন এবং ফিকাহ বিষয়ে বিশেষ জ্ঞানী  ছিলেন।

আশা করি যারা এগুলি করে বা বলে তাঁরা এগুলি থেকে বিরত থাকবে, কেননা এসব বলার মাধ্যমে মূলত ইমাম আবূ হানিফা (রহঃ) কে অসম্মান করা হয় চরম ভাবে। আল্লাহ্‌ উনার প্রতি রহম করুন। আমিন। আর আল্লাহই সবচেয়ে সব বিষয়ে ভালো জানেন।

উত্তর দিয়েছেনঃ এ্যাডমিন , বাংলা হাদিস / 2014-02-04



Fatal error: Cannot redeclare EPCNTR_Go_Error() (previously declared in /home4/hadithbd/public_html/counter/counter.php:614) in /home4/hadithbd/public_html/counter/counter.php on line 637